কোম্পানি সংবাদ পুঁজিবাজার

বিডি ফাইন্যান্স ও ইন্ট্রাকোর ঋণমান নির্ণয়

নিজস্ব প্রতিবেদক: আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাতের কোম্পানি বাংলাদেশ ফাইন্যান্স অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট কোম্পানি লিমিটেডের (বিডি ফাইন্যান্স) ঋণমান অবস্থান (ক্রেডিট রেটিং) নির্ণয় করেছে আলফা ক্রেডিট রেটিং লিমিটেড (আলফারেটিং)। আর বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতের কোম্পানি ইন্ট্রাকো রিফুয়েলিং স্টেশন লিমিটেডের ঋণমান অবস্থান নির্ণয় করেছে ওয়াসো ক্রেডিট রেটিং লিমিটেড (ডব্লিউসিআরসিএল)। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

বাংলাদেশ ফাইন্যান্স অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট কোম্পানি: কোম্পানিটি দীর্ঘ মেয়াদে রেটিং পেয়েছে ‘এএ মাইনাস’। আর স্বল্প মেয়াদে পেয়েছে ‘এসটি-২’। ৩১ ডিসেম্বর ২১৮ ও ২০১৯ সমাপ্ত হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন এবং ১৯ জানুয়ারি পর্যন্ত অন্যান্য প্রাসঙ্গিক তথ্যের আলোকে এ রেটিং সম্পন্ন হয়েছে।

আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাতের কোম্পানিটি ২০০৭ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়ে বর্তমানে ‘এ’ ক্যাটেগরিতে অবস্থান করছে। কোম্পানিটির অনুমোদিত মূলধন ২০০ কোটি টাকা এবং পরিশোধিত মূলধন ১৬৭ কোটি ৫৩ লাখ টাকা। রিজার্ভের পরিমাণ ১০৬ কোটি ৭১ লাখ টাকা। কোম্পানিটির মোট ১৬ কোটি ৭৫ লাখ ২৯ হাজার ৬০৮টি শেয়ারের মধ্যে উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের কাছে ৩০ দশমিক ৩২ শতাংশ, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ১৪ দশমিক ৩৬ শতাংশ ও সাধারণ বিনিয়োগকারীর কাছে ৫৫ দশমিক ৩২ শতাংশ শেয়ার রয়েছে।

২০১৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হিসাববছরের জন্য ১০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছে। আলোচিত হিসাববছরে শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে এক টাকা ১২ পয়সা এবং ৩১ ডিসেম্বর তারিখে শেয়ারপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ১৬ টাকা ৩৭ পয়সা।

ইন্ট্রাকো রিফুয়েলিং স্টেশন লিমিটেড: কোম্পানিটি দীর্ঘ মেয়াদে রেটিং পেয়েছে ‘এ২’ আর স্বল্প মেয়াদে রেটিং পেয়েছে ‘এসটি-৩’। ২০২০ সালের ৩০ জুন সমাপ্ত হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন এবং অন্যান্য প্রাসঙ্গিক তথ্যের আলোকে এ রেটিং সম্পন্ন হয়েছে।

২০১৮ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয় ‘এ’ ক্যাটেগরির এ কোম্পানি। অনুমোদিত মূলধন ১০০ কোটি টাকা এবং পরিশোধিত মূলধন ৯০ কোটি ৯৫ লাখ ৬০ হাজার টাকা। রিজার্ভের পরিমাণ ১৫ কোটি ৪৩ লাখ টাকা। কোম্পানিটির মোট ৯ কোটি ৯ লাখ ৫৬ হাজার ২৫০ শেয়ারের মধ্যে উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের ৩০ দশমিক ৬৬ শতাংশ, প্রাতিষ্ঠানিক ৩১ দশমিক ৭৯ শতাংশ, বিদেশি বিনিয়োগকারীদের কাছে শূন্য দশমিক শূন্য ছয় শতাংশ ও সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ৩৭ দশমিক ৪৯ শতাংশ শেয়ার রয়েছে।

২০২০ সালের ৩০ জুন সমাপ্ত হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে পাঁচ শতাংশ নগদ ও পাঁচ শতাংশ বেনাস লভ্যাংশ দিয়েছে। আলোচিত সময়ে শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৫৫ পয়সা এবং ৩০ জুন তারিখে শেয়ারপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ১২ টাকা ২৮ পয়সা।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..