বিশ্ব সংবাদ

বিশ্ব পুঁজিবাজারে সূচক চার সপ্তাহের মধ্যে সর্বনিম্ন

শেয়ার বিজ ডেস্ক: বিশ্ব পুঁজিবাজার সূচকে গতকাল সোমবার ব্যাপক দরপতন হয়েছে। গত সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় ব্যাংক ফেডারেল রিজার্ভ সিস্টেম (ফেড) দ্রুত মূল্যস্ফীতি হ্রাস এবং বিনিয়োগকারীদের ঝুঁকি কমানোর মুদ্রানীতি ঘোষণার ইঙ্গিত দেয়। এর ফলে গতকাল গ্লোবাল স্টক এক্সচেঞ্জে সূচক চার সপ্তাহের মধ্যে সর্বনিম্ন হয়। একই সঙ্গে ডলারের দাম গত সপ্তাহের চেয়েও বেড়ে যায়, যা গত ১০ সপ্তাহের মধ্যে সর্বোচ্চ বৃদ্ধি। খবর: রয়টার্স, ইনভেস্টিং ডটকম।

গত সপ্তাহে ফেডের দুই শীর্ষ কর্মকর্তা এক সাক্ষাৎকারে সিএনবিসিকে বলেন, আগামী বুধবার ফেডের শীর্ষ সভায় ‘কঠোর’ মুদ্রানীতি ঘোষণা করা হচ্ছে, যেখানে ২০২৩ সাল পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্রের মূল্যস্ফীতি কমানো এবং প্রবৃদ্ধি বাড়ানোর বিষয়ে নির্দেশনা থাকবে। এর পর থেকে ডলারের দাম বাড়তে থাকে।

এদিকে গতকাল দিনের শুরুতে ইউরোপের পুঁজিবাজার সূচক কম দিয়ে শুরু হয়। কিন্তু ইউরোপীয় বেনামি সূচক এসটিওএক্সএক্স ৬০০ সূচক শুরুতে কমলেও দিনের শেষে তেমন পুঁজি হারাতে হয়নি। কারণ জার্মান ও ইতালিয়ান শেয়ার ওই সূচককে বৃদ্ধি করতে সহায়তা করেছে।

অন্যদিকে ব্রিটেনের পুঁজিবাজার এফটিএসই ১০০ সূচক দশমিক শূন্য পাঁচ শতাংশ, ফরাসি সিএসি ৪০ সূচক শূন্য দশমিক তিন শতাংশ এবং স্পেনের আইবিইএক্স ৩৫ সূচক শূন্য দশমিক ছয় শতাংশ হ্রাস পেয়েছে। আর এমএসসিআই সূচক ৪৯টি দেশের মধ্যে শূন্য দশমিক তিন শতাংশ হ্রাস পেয়েছে, যা গত ২৪ মে থেকে সর্বনি¤œ সূচক।

এদিকে এশিয়ান পুঁজিবাজারেও সূচকের গতকাল ব্যাপক অবনতি হয়েছে। জাপানের নিক্কির সূচক তিন দশমিক ছয় শতাংশ কমে চলতি মাসে প্রথমবারের মতো ২৮০০০ সূচকে অবস্থান করেছে। আর এমএসসিআই ব্রডকাস্ট সূচকের এশিয়া-প্যাসিফিক শেয়ারে জাপানে এক দশমিক চার শতাংশ এবং চীনে শূন্য দশমিক সাত শতাংশ হ্রাস পেয়েছে।

তবে শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াল স্ট্রিট আবার চালু করার পর ইউএস স্টক ফিচারস সূচক শূন্য দশমিক দুই শতাংশ বেড়েছে। আর নাসডাকের সূচকও শূন্য দশমিক তিন শতাংশ বেড়েছে।

এদিকে ডিজিটাল মুদ্রা বিটকয়েনে চীন ফের নিষেধাজ্ঞা দেয়ায় এবং বুধবারে ফেডের নতুন মুদ্রানীতি ঘোষণাকে কেন্দ্র করে মার্কিন ডলারের দাম বেড়েছে। গতকাল আন্তর্জাতিক বাজারে ডলারের দাম আগের সপ্তাহের শক্ত অবস্থান ধরে আরও শক্তিশালী হয়েছে।

গতকাল ডলার সূচকে দেখা যায়, গ্রিনবেঞ্চে ছয়টি প্রধান মুদ্রার বিপরীতে ডলারের দাম শুক্রবারের ৯২ দশমিক ২২১ পয়েন্টে থেকে বেড়ে ৯২ দশমিক ৪০৫ পয়েন্টে পৌঁছেছে, যা এক দশমিক ৯ শতাংশ বৃদ্ধি। এটি গত ১৩ এপ্রিল থেকে সর্বোচ্চ পয়েন্ট। এর আগে ২০২০ সালের মার্চে সর্বোচ্চ সূচকে দেখা গেছে।

এদিকে গতকাল ডলারের বিপরীতে ইউরোর দাম কমে এক দশমিক ১৮৮৭ ডলার হয়েছে, যা গত ৬ এপ্রিল থেকে সর্বনিম্ন।

অন্যদিকে মার্কিন ডলারের বিপরীতে অস্ট্রেলিয়ান ডলারের দামও কমে গেছে। অস্ট্রেলিয়ায়  লোহা ও আকরিকের দাম বেড়ে যাওয়ায় গতকাল অস্ট্রেলীয় ডলারের দাম কমে শূন্য দশমিক ৭৪৯৫ মার্কিন ডলারে নেমেছে, যা গত ছয় মাসের মধ্যে সর্বনি¤œ।

এদিকে চীনের নিষেধাজ্ঞায় বিটকয়েনের দাম ১০ শতাংশ কমে ৩২ হাজার ৯৪ ডলারে নেমেছে, যা গত ১২ দিনে সর্বনিম্ন। এর আগেও বিটকয়েনের দাম আট দশমিক তিন শতাংশ নেমে যায়।

অন্যদিকে স্বর্ণের দাম এক দশমকি এক শতাংশ বেড়ে আউন্সে এক হাজার ৭৮২ দশমিক ৯০ ডলার হয়েছে। লন্ডন মেটাল একচেঞ্জে কপারের দাম গত সপ্তাহে আট দশমিক তিন শতাংশ কমেছে।

অন্যদিকে অপরিশোধিত তেলের দাম দ্বিতীয় দিনের মতো গতকালও বেড়েছে। ওপেক তেল উত্তোলন বাড়ানোর পরও গতকাল ব্রেন্ড ক্রুড ফিচারস শূন্য দশমিক দুই শতাংশ বেড়ে ব্যারেলপ্রতি ৭৩ দশমিক ৬৪ ডলার হয়েছে। আর ইউএস ওয়েস্ট টেক্সাস (ডব্লিউটিআই) সূচকে শূন্য দশমিক তিন শতাংশ বেড়ে ব্যারেলপ্রতি ৭১ দশমিক ৮৩ ডলারে পৌঁছেছে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..