প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি: অনির্দিষ্টকালের শ্রমিক ধর্মঘট অব্যাহত

 

শেয়ার বিজ ডেস্ক: দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লাখনির শ্রমিকদের অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটের ফলে দ্বিতীয় দিনের মতো বন্ধ ছিল খনির কয়লা উত্তোলন। খনিতে কর্মরত এক হাজার ৪০ জন শ্রমিকের চাকরি স্থায়ীকরণের দাবিতে রোববার থেকে কাজ বন্ধ করে দেন। এদিকে স্ব-স্ব অবস্থানে থেকে ধর্মঘট শুরু করায় খনির ভূ-অভ্যন্তরে আটকা পড়ে রয়েছে ২৮৫ জন শ্রমিক। খবর পরিবর্তন ডটকম।

বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি শ্রমিক-কর্মচারী ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক আবু সুফিয়ান জানান, প্রায় এক হাজার ৪০ জন শ্রমিক খনির সূচনালগ্ন থেকে এ খনিতে দিন হাজিরা হিসেবে কাজ করছেন। মাত্র ৩০০ টাকা হাজিরা দরে কাজ করে তাদের সংসার চালাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। যে কারণে তারা চাকরি স্থায়ীকরণের দাবিতে দীর্ঘদিন থেকে আন্দোলন করে আসছেন। সবশেষ ৭ জানুয়ারির মধ্যে খনি কর্তৃপক্ষ আলোচনার মাধ্যমে সমস্যা নিরসনের আশ্বাস দিলেও শ্রমিকদেও দাবির প্রতি কোনো সাড়া দেয়নি। ফলে বাধ্য হয়েই তারা রোববার থেকে এ কঠোর কর্মসূচিতে যেতে বাধ্য হয়েছেন।

বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি শ্রমিক-কর্মচারী ইউনিয়নের সাংগঠনিক সম্পাদক এহসানুল হক সোহাগ জানান, রোববার থেকে ধর্মঘট শুরু করায় খনির ভূ-অভ্যন্তরে ২৮৫ জন শ্রমিক অনাহারে রয়েছেন। ইতোমধ্যে খনি অভ্যন্তরে থাকা দুজন শ্রমিক গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাদের উদ্ধার করে ফুলবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। তারা হলেন মোশাররফ হোসেন ও শহীদার রহমান।

এ ব্যাপারে বড়পুকুরিয়া কোল মাইনিং কোম্পানি লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক নুরুল আওরঙ্গজেব জানান, আন্দোলনকারী শ্রমিকরা বড়পুকুরিয়া কোল মাইন কোম্পানির ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের শ্রমিক। তাই তাদের চাকরি স্থায়ীকরণের সুযোগ নেই।