বিশ্ব সংবাদ

ভারতে কভিডে শনাক্ত তিন কোটি ছাড়াল

শেয়ার বিজ ডেস্ক: ভারতে গত কয়েকদিন মহামারি করোনাভাইরাস জনিত রোগ (কভিড-১৯) সংক্রমণ ও মৃত্যু হার কিছুটা কমলেও কভিড রোগীর সংখ্যা তিন কোটি ছাড়িয়েছে। সংক্রমণের দিক দিয়ে ভারত যুক্তরাষ্ট্রের পর বিশ্বের দ্বিতীয় অবস্থানে। আর মোট মৃত্যুও তিন লাখ ৯০ হাজার ছাড়িয়েছে। খবর: বিবিসি, এনডিটিভি।

গতকাল বুধবার দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায়  দেশটিতে ৫০ হাজার ৮৪৮ জন নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছে, যা আগের দিনের চেয়ে ১৯ শতাংশ বেশি।  এ নিয়ে ভারতে সরকারি হিসাবে মোট রোগীর সংখ্যা তিন কোটি ২৮ হাজার ৭০৯ জনে দাঁড়িয়েছে।

তিন কোটি ৩৫ লাখ ৬৪ হাজারেরও বেশি শনাক্ত রোগী নিয়ে আক্রান্তের সংখ্যায় বিশ্বে যুক্তরাষ্ট্র শীর্ষে আছে আর দ্বিতীয় স্থানে আছে ভারত। তৃতীয় স্থানে থাকা ব্রাজিলে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা এক কোটি ৮০ লাখ ৫৪ হাজারের কিছু বেশি। 

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে আরও ১৩৫৮ জন রোগীর মৃত্যু হয়েছে। এদের নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা তিন লাখ ৯০ হাজার ৬৬০ জনে দাঁড়িয়েছে। কভিডে মৃতের সংখ্যায় যুক্তরাষ্ট্র ও ব্রাজিলের পর তৃতীয় স্থানে ভারত। আর দেশটিতে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ছয় লাখ ৪৩ হাজার ১৯৪ জনে দাঁড়িয়েছে।

গত সোমবার দেশটিতে ৮৮ লাখেরও বেশি লোককে টিকা দেয়া হয়েছিল যাকে ‘ঐতিহাসিক মাইলফলক’ বলছে সেখানকার গণমাধ্যম; কিন্তু মঙ্গলবার টিকা পাওয়া লোকের সংখ্যা ৫৩ লাখ ৪০ হাজারে নেমে আসে।

ভারতে সংক্রামক ‘ডেল্টা’ ধরনের নতুন মিউট্যান্ট সংস্করণ ‘ডেল্টা প্লাস’ নতুন ‘উদ্বেগের কারণ’ হয়ে দাঁড়াচ্ছে বলে দেশটির সরকার সতর্ক করেছে। মহারাষ্ট্র, কেরালা ও মধ্যপ্রদেশে ডেল্টা প্লাসে আক্রান্ত ২২ জন রোগী পাওয়া গেছে।

ঝাড়খণ্ডে বিস্তার লাভ করা কভিডের অতিসংক্রামক ধরন ডেল্টা, আলফা ও কাপ্পার কারণে উদ্বিগ্ন হয়ে আছে রাজ্যটির সরকার।

ভারতে প্রথম শনাক্ত হওয়া ডেল্টা ও কাপ্পা ধরনের বিরুদ্ধে অ্যাস্ট্রাজেনেকার কভিড টিকা কার্যকর বলে দাবি করেছে কোম্পানিটি।  যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্ত অঞ্চল থেকে কভিড নির্মূলের উদ্যোগের ক্ষেত্রে ডেল্টা ধরন এখন সবচেয়ে বড় হুমকি বলে মন্তব্য করেছেন দেশটির শীর্ষ সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. অ্যান্থনি ফাউচি।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..