খবর

মানবাধিকার কাউন্সিলকে দুর্গ হিসেবে আত্মপ্রকাশ করা উচিত

নিজস্ব প্রতিবেদক: জাতিসংঘ মানবাধিকার কাউন্সিলকে সর্বজনীনতা, নিরপেক্ষতা ও ভেদাভেদ পরিহারের নীতি অনুসরণ করে মানবাধিকার রক্ষার জন্য একটি দুর্গ হিসেবে আত্মপ্রকাশ করা উচিত বলে মন্তব্য করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। 

তিনি জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলের ৪৬তম অধিবেশনের একটি উচ্চতর সেশনে এক ভিডিও বিবৃতিতে এ মন্তব্য করেন। গতকাল পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

ড. মোমেন বলেন, মানবাধিকার সুরক্ষায় বাংলাদেশ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দৃষ্টিভঙ্গি অনুসরণ করে চলেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশে আইনের শাসন, ন্যায়বিচার, জেন্ডার সমতা, মতপ্রকাশের স্বাধীনতা নিশ্চিত এবং সংখ্যালঘু নারী, শিশু, প্রতিবন্ধী ব্যক্তিসহ সবার অধিকারের প্রতি সম্পূর্ণ প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

‘বাংলাদেশ মানবাধিকারের প্রতি প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী নিপীড়িত রোহিঙ্গাদের অস্থায়ীভাবে আশ্রয় দেয়া অব্যাহত রেখেছে। তবে রোহিঙ্গারা মিয়ানমারের নাগরিক এবং তাদের অবশ্যই মিয়ানমারে ফিরে যেতে হবে। রোহিঙ্গাদের নিজ দেশে প্রত্যাবাসনে মানবাধিকার কাউন্সিল ও আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে গঠনমূলক ভূমিকা নিতে হবে। ’

তিনি রাখাইন-বিষয়ক উপদেষ্টা কমিশনের সুপারিশ বাস্তবায়ন ও মিয়ানমারে অনুকূল পরিবেশ তৈরির ওপর গুরুত্বারোপ করেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী জলবায়ু পরিবর্তনে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ন্যায়বিচার নিশ্চিতের ওপরও জোর দেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন তিন দিনের সফরে যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান করছেন।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..