বাণিজ্য সংবাদ শিল্প-বাণিজ্য

মানসম্মত পণ্য বিক্রয়কেন্দ্র অস্ট্রেলিয়া প্লাস মিনি মার্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশে অস্ট্রেলীয় পণ্য দেশে পরিচিত ও বিপণনের উদ্যোগ নিয়েছে অস্ট্রেলিয়া প্লাস মিনি মার্ট। তিন দশক ধরে অস্ট্রেলিয়া থেকে আমদানি করে দেশের মানুষকে ভালো মানের পণ্য সরবরাহ করছেন অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী মুকিতুর রহমান এবং জান্নাতুল রহমান দম্পতি। তাদের যৌথ পরিচালনায় গেল বছরের ২৪ অক্টোবর উদ্বোধন করা হয় অস্ট্রেলিয়া প্লাস মিনি মার্ট।

গতকাল রাজধানীর কলাবাগানে প্রতিষ্ঠানটির নিজস্ব বিক্রয়কেন্দ্রে আয়োজিত বিখ্যাত শেফ টনি খান একটি রান্নার অনুষ্ঠান আয়োজন করে অস্ট্রেলিয়া প্লাস মিনি মার্ট। প্রতিষ্ঠানটির স্বত্বাধিকারী মুকিত রহমান বলেন, অস্ট্রেলিয়ার বেশকিছু সেরা পণ্য আছে, যা দেশের মানুষের কাছে অপরিচিত। অথচ রাজধানীর বিভিন্ন সুপারশপ এবং ব্র্যান্ড শপে যা বিক্রি হচ্ছে তা মানসম্মত নয়। কিন্তু এ পণ্যগুলো চড়া দামে বিক্রি করছে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী। সেই জায়গা থেকে আমরা অথেনটিক পণ্য নিয়ে এসেছি, যেন দেশের মানুষ দাম দিয়ে সঠিক পণ্যটি ক্রয় এবং ব্যবহার করতে পারেন।

জান্নাতুল রহমান বলেন, দেশে-বিদেশি পণ্য হিসেবে যে পণ্যগুলো বিক্রি হয় তার বেশিরভাগই আমদানি করা পণ্য নয়। দেশেই নকল পণ্য উৎপাদন করে উচ্চ দামে বিক্রি করা হয় অনেক ক্ষেত্রে। এদিক থেকে অস্ট্রেলিয়া প্লাস মিনি মার্টে আসল পণ্যগুলো পাবেন গ্রাহকরা। আমাদের শপে অস্ট্রেলিয়া, যুক্তরাজ্য ও দুবাইয়ের উন্নতমানের ও ব্র্যান্ডেড পণ্যগুলো সুলভ মূল্যে পাওয়া যাবে।

গতকাল প্রতিষ্ঠানটির শপে আয়োজিত এক রান্নার অনুষ্ঠানে পাঁচ তারকা হোটেল ওয়েস্টিনের বিখ্যাত শেফ টনি খান রান্না করেন। রান্না করতে তিনি অস্ট্রেলিয়া থেকে আনা বিভিন্ন পণ্য ব্যবহার করেন এবং এসব পণ্যের মান সম্পর্কে মতামত দেন। টনি খান তার রান্নায় ব্যবহার করা পণ্যগুলোকে বিশ্বমানের এবং রান্নায় এসব ব্যবহারে খাবারের স্বাদ বেড়ে যায় বলে জানান। দেশের মানুষকে এসব পণ্য ব্যবহারের আহ্বান জানান এই শেফ।

কী কী পণ্য আছে জানতে চাইলে মুকিতুর রহমান বলেন, নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্র ছাড়াও অস্ট্রেলিয়ার সেরা প্রসাধনী যেমন ক্রিম, স্নো, জেল, বডি স্প্রে, পারফিউম, বিভিন্ন ধরনের ড্রাই ফ্রুট, বিস্কিট, চিপস, বিশ্বের সেরা ব্র্যান্ডের নানা ধরনের চকোলেট, ফুড সাপ্লিমেন্ট, কয়েক রকমের জুস, নুডলস, কয়েক প্রকারের রান্নার তেল এবং নারীদের হ্যান্ড ব্যাগ পাওয়া যাবে। আগামী দিনে আরও কিছু পণ্য আমদানি করা হবে বলেও জানান মুকিতুর রহমান।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..