সারা বাংলা

মানুষকে নয়, করোনাকে লকডাউন করতে হবে: চসিক প্রশাসক

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম: চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) প্রশাসক মোহাম্মদ খোরশেদ আলম সুজন বলেছেন, করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় মানুষকে কষ্ট দিয়ে লকডাউন করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কাউকে গৃহবন্দি রাখতে চান না। তার এই ইচ্ছা ও আকাক্সক্ষা বাস্তবায়নে চসিক প্রশাসক হিসেবে মাঠে নেমেছি। তাই মানুষকে নয়, করোনাকে লকডাউন করতে চাই। এ জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৩১টি নির্দেশনা মেনে চলতে হবে। এভাবে করোনাকে লকডাউন করে সবার মুক্তি ও বিজয় ছিনিয়ে আনতে হবে।

গতকাল নগরীর কর্নেল হাটে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় নাগরিক সচেতনতামূলক অভিযানে এ কথা বলেন। চসিক প্রশাসক বলেন, মাস্ক নিজেকে পরতে হবে, অন্য কেউ পরাতে ভূমিকা রাখতে হবে। মাস্ক ছাড়া কেউ বাজারে ঢুকলে তাকে এড়িয়ে চলতে হবে। গণপরিবহনে মাস্ক ছাড়া কোনো যাত্রী তোলা যাবে না। ‘নো মাস্ক, নো সার্ভিস’ এই ঘোষণা অনুযায়ী সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে সেবাদাতা ও গ্রহীতাকে অবশ্য মাস্ক পরতে হবে। এক্ষেত্রে ব্যত্যয় ঘটলে কেউ রেহাই পাবে না বলে উল্লেখ করেন তিনি।

এ সময় হুশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, মানুষ যদি বেপরোয়া হয়, তাহলে নিজেরাই নিজেদের দুঃখ ডেকে আনবে। কভিড-১৯ একটি ছোঁয়াচে রোগ, একজন থেকে অন্যজনের কাছে সংক্রমিত হয়। এই সহজ কথাটা কেউ না বুঝলে একজন অসচেতন ব্যক্তি ১০ জনের মহাবিপদের কারণ হয়ে দাঁড়াবে। তাই অসচেতন ব্যক্তিকে উচিত শিক্ষা দেওয়া একটি সামাজিক দায়বদ্ধতা।

তিনি সচেতনতামূলক প্রচার অভিযানকালে কর্নেল হাট এলাকায় বিভিন্ন বিপণি কেন্দ্র পরিদর্শন করেন। এই সময় কিছু অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করার নির্দেশনা দেন। পরে তিনি উত্তর কাট্টলী বিশ্বাস পাড়া যান এবং রোডের উন্নয়নকাজ পরিদর্শন করেন। এ সময় তিন রোডের কাজ বিলম্ব হওয়ার কারণ জানতে চান এবং দ্রুত শেষ করার জন্য সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলীকে নির্দেশ দেন। এছাড়া তিনি চসিক মোস্তফা হাকিম হাসপাতালও পরিদর্শন করেন।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..