কোম্পানি সংবাদ

মেয়াদ বাড়ল দুই মিউচুয়াল ফান্ডের

নিজস্ব প্রতিবেদক: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ট্রাস্ট ব্যাংক ফার্স্ট মিউচুয়াল ফান্ড ও পপুলার লাইফ ফার্স্ট মিউচুয়াল ফান্ডের মেয়াদ আরও বাড়ানো হয়েছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
ট্রাস্ট ব্যাংক ফার্স্ট মিউচুয়াল ফান্ড: ট্রাস্ট ব্যাংক ফার্স্ট মিউচুয়াল ফান্ডের মেয়াদ আরও ১০ বছর বাড়ানো হয়েছে। তহবিলটির ব্যবস্থাপক বাংলাদেশ রেস ম্যানেজমেন্ট জানিয়েছে, সরকারের আদেশ অনুযায়ী বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এক্ষেত্রে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ অর্ডিন্যান্স, ১৯৬৯ আইনের ২০এ ধারা প্রয়োগ করা হয়েছে।
এদিকে সর্বশেষ কার্যদিবসে ডিএসইতে ফান্ডটির শেয়ারদর অপরিবর্তিত থেকে প্রতিটি সর্বশেষ চার টাকা ৬০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দরও ছিল চার টাকা ৬০ পয়সা। ওইদিন ছয় লাখ ২৪ হাজার ৪৭৫টি ইউনিট মোট ১০৪ বার হাতবদল হয়, যার বাজারদর ২৮ লাখ ৯৩ হাজার টাকা। দিনভর ইউনিট দর সর্বনিম্ন চার টাকা ৬০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ চার টাকা ৭০ পয়সায় ওঠানামা করে। এক বছরের মধ্যে ইউনিট দর চার টাকা ২০ পয়সা থেকে ছয় টাকা ৩০ পয়সায় ওঠানামা করে।
মিউচুয়াল ফান্ড খাতের এ কোম্পানিটি ২০১০ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়ে বর্তমানে ‘এ’ ক্যাটেগরিতে অবস্থান করছে। ফান্ডটির পরিশোধিত মূলধন ৩০৩ কোটি ৫৮ লাখ ৬০ হাজার টাকা। রিজার্ভের পরিমাণ ১৬ কোটি ৯২ লাখ ৪০ হাজার টাকা। ফান্ডটির মোট ৩০ কোটি ৩৫ লাখ ৮৬ হাজার ৬৭৫টি শেয়ার রয়েছে। ডিএসই থেকে প্রাপ্ত সর্বশেষ তথ্যমতে, ফান্ডটির মোট শেয়ারের মধ্যে উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের কাছে এক দশমিক ৫১ শতাংশ, প্রাতিষ্ঠানিক ৫০ দশমিক ৮৭ শতাংশ ও সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে রয়েছে ৪৭ দশমিক ৬২ শতাংশ শেয়ার। সর্বশেষ বার্ষিক প্রতিবেদন ও বাজারদরের ভিত্তিতে শেয়ারের মূল্য আয় (পিই) অনুপাত চার দশমিক ২৬ এবং হালনাগাদ অনিরীক্ষিত ইপিএসের ভিত্তিতে ১৫ দশমিক ৩৩।
পপুলার লাইফ ফার্স্ট মিউচুয়াল ফান্ড: পপুলার লাইফ ফার্স্ট মিউচুয়াল ফান্ডের মেয়াদ আরও ১০ বছর বাড়ানো হয়েছে। তহবিলটির ব্যবস্থাপক বাংলাদেশ রেস ম্যানেজমেন্ট জানিয়েছে, সরকারের আদেশ অনুযায়ী বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এক্ষেত্রে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ অর্ডিন্যান্স, ১৯৬৯ আইনের ২০-এ ধারা প্রয়োগ করা হয়েছে।
এদিকে সর্বশেষ কার্যদিবসে ডিএসইতে ফান্ডটির ইউনিটপ্রতি দর অপরিবর্তিত থেকে প্রতিটি সর্বশেষ চার টাকা ৫০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দরও ছিল চার টাকা ৫০ পয়সা। ওইদিন এক লাখ ৫৮ হাজার ৪৩৩টি ইউনিট মোট ২৫ বার হাতবদল হয়, যার বাজারদর সাত লাখ ২৩ হাজার টাকা। দিনভর ইউনিটপ্রতি দর সর্বনিম্ন চার টাকা ৪০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ চার টাকা ৬০ পয়সায় ওঠানামা করে। এক বছরের মধ্যে ইউনিট দর তিন টাকা ৯০ পয়সা থেকে পাঁচ টাকা ৮০ পয়সায় ওঠানামা করে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..