প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

মোটরযান খেলাপি প্রায় ছয় লাখ: ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত জরিমানা ছাড়া বকেয়া পরিশোধের সুযোগ

 

নিজস্ব প্রতিবেদক: আগামী ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত জরিমানা ছাড়াই গাড়ির বকেয়া ফিটনেস ফি এবং অন্যান্য টোল পরিশোধ করতে পারবেন মোটরযানখেলাপিরা।

গতকাল মঙ্গলবার সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত এক আন্তমন্ত্রণালয় বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সভাপতিতে অনুষ্ঠিত এ বৈঠকে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, অর্থ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মাহবুব আহমেদ, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সচিব এমএন সিদ্দিকীসহ উভয় মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠক সূত্রে জানা যায়, দেশে বিভিন্ন ধরনের ২৮ লাখ গাড়ি রয়েছে। এর মধ্যে পাঁচ লাখ ৯০ হাজার গাড়ির ফিটনেস এবং অন্যান্য টোল খেলাপি হয়ে পড়েছে। গাড়িগুলো ফিটনেস সার্টিফিকেট না নেওয়ায় জরিমানাসহ ফি’র বিপুল পরিমাণ অর্থ আটকে আছে। এ প্রসঙ্গে জরিমানা ছাড়া ফিটনেস ফি জমা দেওয়ার সময় বাড়ানোর জন্য সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ে অনুরোধ করা হলে বৈঠকে আগামী ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত সময় বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

সূত্রমতে, কাগজে-কলমে এ ধরনের গাড়ির সংখ্যা প্রায় ছয় লাখ। তবে বাস্তবে সংখ্যা অর্ধেকের মতো হতে পারে। কারণ অনেক গাড়ি নষ্ট হয়ে গেছে। কিন্তু গাড়ির নম্বর সরকারি খাতায় রয়ে গেছে। সবশেষ ২০১৪ সালে জরিমানা ছাড়া ফি প্রদানের এ ধরনের সুযোগ দেওয়া হয়েছিল। তখন ২৭৫ কোটি টাকার রাজস্ব আদায় হয়। সে সফলতা থেকেই ফের একই ধরনের সুযোগ দেওয়ার চিন্তা করা হচ্ছে।