সারা বাংলা

যশোরে কভিড শনাক্তের হার ৫৭ শতাংশ

প্রতিনিধি, যশোর: যশোরে ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরও ৪৫৪ জনের কভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। একই সময়ে কভিড ও এই রোগের উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন পাঁচজন।

শনাক্তের এ ঊর্ধ্বগতি রুখতে কঠোর লকডাউন কার্যকরের চেষ্টা করছে জেলা প্রশাসন। তবে মানুষের অসচেতনতা, বেপরোয়া চলাফেরা ও শ্রমজীবী মানুষের কাজের সন্ধানে বের হওয়ায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ কঠিন হয়ে পড়েছে।

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্যমতে, গত ২৪ ঘণ্টায় ৮০০টি নমুনা পরীক্ষা করে ৪৫৪টি পজিটিভ ফল পাওয়া গেছে। শনাক্তের হার প্রায় ৫৭ শতাংশ। এ সময়ের মধ্যে মারা গেছেন পাঁচজন। তাদের মধ্যে একজন কভিড রোগী বলে শনাক্ত হয়েছিলেন। অন্য চারজনের কভিড উপসর্গ ছিল। বর্তমানে হাসপাতালের কভিড ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন ১৪১ জন।

যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) জেনোম সেন্টার থেকে প্রকাশিত ফলে বলা হয়েছে, সন্দেহভাজন কভিড-১৯ রোগীদের শরীর থেকে সংগ্রহ করা মোট ৭১৫টি নমুনা পরীক্ষা করেন তারা। এর মধ্যে ৩৮৫টি পজিটিভ রেজাল্ট দেয়। এ তথ্য জেলার সিভিল সার্জন কার্যালয়ে পাঠিয়ে দিয়েছে যবিপ্রবি কর্তৃপক্ষ।

যশোরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট কাজী মো. সায়েমুজ্জামান বলেন, ‘আমরা যশোরে কঠোর লকডাউন কার্যকর করে চলেছি। আশা করেছিলাম সংক্রমণের হার কমবে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..