প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

যশোরে ১২৪টি সোনার বারসহ আটক ১

প্রতিনিধি, যশোর: বর্ডার গার্ড অব বাংলাদেশ (বিজিবি) যশোরের চৌগাছা উপজেলার কাবিলপুর শ্মশান ঘাট এলাকা থেকে ১২৪ পিস সোনার বারসহ শাহ আলম নামে এক চোরাকারবারিকে আটক করেছে। আটককৃত সোনার ওজন ১৪ কেজি ৪৫০ গ্রাম। যার দাম প্রায় ১০ কোটি ১১ লাখ ৫০ হাজার টাকা।

গতকাল দুপুরে যশোরের ৪৯ বিজিবি হেডকোয়ার্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে বিজিবি অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল শাহেদ মিনহাজ সিদ্দিকী এ তথ্য জানান। এর আগে সকাল সাড়ে ৮টার দিকে অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে বিজিবি অধিনায়ক বলেন, গোয়েন্দা তথ্যের ওপর ভিত্তি করে বেশ কিছুদিন ধরে সোনা চোরাকারবারিদের একটি গ্রæপের ওপর নজরদারি করা হচ্ছিল। এরই অংশ হিসেবে শুক্রবার ভোরে চৌগাছা সীমান্তের শাহজাদপুর বিওপির সদস্যরা শাহ আলমকে নজরদারি শুরু করেন। এরপর তাকে সকাল সাড়ে ৮টার দিকে শাহজাদপুর বিওপির এক কিলোমিটার অদূরে কাবিলপুর শ্মশান ঘাট এলাকা থেকে আটক করা হয়।

বিজিবি অধিনায়ক জানান, এ সময় আটক শাহ আলমের কোমরে পেঁচানো ১২৪ পিস স্বর্ণের বার উদ্ধার করা হয়। এ ছাড়া তার ব্যবহƒত মোটরসাইকেলটি জব্দ করা হয়েছে। জব্দকৃত সোনার বাজারমূল্য ১০ কোটি সাড়ে ১১ লাখ ৫০ হাজার টাকা।

বিজিবির অধিনায়ক আরও জানান, আটক শাহ আলম কৃষক সেজে ওই স্বর্ণের বার শ্মশানে রেখে আসতে গিয়েছিল। ওখান থেকে অন্য একটি গ্রæপের সদস্যদের ওই বার নিয়ে যাওয়ার কথা। কিন্তু তার আগেই শাহ আলমকে আটক করে বিজিবি। শাহ আলম এর আগে আরও ৬টি চালান সফলভাবে পাচার করেছে। সপ্তম চালান পাচারকালে তাকে আটক করা হয়। জব্দকৃত মোটরসাইকেলসহ শাহ আলমকে চৌগাছা থানায় সোপর্দ করা হবে। এছাড়া জব্দ সোনার বারগুলো আদালতের মাধ্যমে রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা দেয়া হবে বলেও জানান তিনি।