যানজট নিরসনে ফেনীতে চালু পৌর সিএনজি সেবা

কামরুল হাসান ছিদ্দিকি, ফেনী: ফেনী শহরের দীর্ঘদিনের যানজট ও যাত্রীদের ভোগান্তি লাঘব করতে এবার পৌরসভার উদ্যোগে শহর এলাকায় চালু করা হয়েছে পৌর সিএনজিচালিত অটোরিকশা সেবা।

পৌর এলাকার বিভিন্ন রুটে চলাচল করবে লাল ও হলুদ রং সংবলিত এসব সিএনজি। ভাড়া নিয়ে যাত্রী ও চালকের মধ্যকার বাগ্বিতণ্ডা এড়াতে ভাড়া নির্ধারণ করে তা তালিকা আকারে লাগানো হয়েছে সব সিএনজির পেছনের অংশে।

এছাড়া কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে সব সিএনজি ও চালকের তথ্য সংরক্ষিত থাকবে পৌরসভা কর্তৃপক্ষের কাছে। চালকদের দেয়া হবে পৌরসভার লোগো ও সিরিয়াল নম্বর সংবলিত শার্ট, যা যাত্রী পরিবহনের সময় পরিধান বাধ্যতামূলক করা হবে বলে জানিয়েছে পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজি।

গতকাল দুপুরে এ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন ফেনী ২ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন হাজারী। মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজির সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন ফেনীর ডিসি আবু সেলিম মাহমুদ-উল হাসান, জেলা পুলিশ সুপার খোন্দকার নুরুন্নবী প্রমুখ।

একইদিন ফেনী পৌরসভার সেবা কার্যক্রম আধুনিকায়ন করার লক্ষ্যে চালু করা হয় ‘মেয়র ফেনী পৌরসভা’ নামের একটি মোবাইল অ্যাপ। এ অ্যাপের মাধ্যমে নগরবাসী ঘরে বসে জš§, মৃত্যু, নাগরিক, ওয়ারিশ সনদ, ট্রেড লাইসেন্সসহ নানা সনদের আবেদন ও সেবা নিতে পারবেন। জানতে পারবেন মেয়রের দৈনন্দিন কার্যক্রমের তথ্য ও পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের তথ্য। এছাড়া অ্যাপের মাধ্যমে সরাসরি পৌরসভা কর্তৃপক্ষকে জানাতে পারবেন নিজেদের অভিযোগ ও পরামর্শ। জরুরি সেবা নেয়ার ক্ষেত্রে অ্যাপের মাধ্যমে যোগাযোগ করা যাবে স্থানীয় থানা, হাসপাতাল, ফায়ার সার্ভিস, ব্যাংক ও ফার্মেসিসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাংসদ নিজাম উদ্দিন হাজারী পুরো কার্যক্রমকে সাধুবাদ ও পৌর মেয়রকে ধন্যবাদ জানিয়ে এই কার্যক্রমের মাধ্যমে যানজটের কারণে নগরবাসীর যে দীর্ঘদিনের ভোগান্তি, সেটা কেটে যাবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

অন্যদিকে ডিসি আবু সেলিম মাহমুদ-উল হাসান এ সেবার আওতায় থাকা সিএনজি চালকদের উদ্দেশ্যে বলেন, নগরবাসী যাতে এ সেবায় সন্তুষ্ট হতে পারেন সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। এছাড়া এসব রুটে যাতে অন্য কোনো বাহন চলাচল করে যানজট সৃষ্টি করতে না পারে সেদিকে প্রশাসন নজরদারি রাখবে বলে জানান তিনি।

এছাড়া পৌরবাসীর সেবায় চালু করা মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে সেবাপ্রত্যাশীদের হয়রানি ও ভোগান্তি বেশ কমে যাবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে পুরো ফেনীর নাগরিকদের সব ধরনের হয়রানি কমাতে ও সব সেবা সহজলভ্য করতে জেলার ৪৩টি ইউনিয়নকে এ সেবার আওতায় আনার লক্ষ্যে কাজ চলছে। পাশাপাশি এরই মধ্যে সব ইউনিয়ন পরিষদের সচিবদের প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।


সর্বশেষ..