যুক্তরাষ্ট্রে স্কুলে সহপাঠীর গুলিতে নিহত ৩

শেয়ার বিজ ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের মিশিগান অঙ্গরাজ্যের একটি মাধ্যমিক স্কুলে ১৫ বছর বয়সী এক শিক্ষার্থীর গুলিতে অপর তিন শিক্ষার্থী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও আটজন। আহতদের মধ্যে একজন শিক্ষকও রয়েছেন। মঙ্গলবার বিকালে স্থানীয় অক্সফোর্ড হাইস্কুলে গোলাগুলি ও প্রাণহানির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার পর দ্রুতই তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। খবর: রয়টার্স, বিবিসি।

মশিগান রাজ্যের কর্মকর্তারা বলছেন, নিহত তিনজনই ওই স্কুলের শিক্ষার্থী। তাদের মধ্যে একজন ১৬ বছরের কিশোর। এছাড়া নিহত অপর দুজন মেয়ে শিক্ষার্থী এবং তাদের বয়স যথাক্রমে ১৪ ও ১৭ বছর।

যুক্তরাষ্ট্রের পুলিশ বলছে, বন্দুক হামলায় অভিযুক্ত কিশোরের বয়স ১৫ বছর এবং সে একাই এ হামলার জন্য দায়ী। তাদের দেয়া তথ্য অনুযায়ী, একটি সেমি-অটোমেটিক হ্যান্ডগান নিয়ে অভিযুক্ত ওই কিশোর মিশিগান অঙ্গরাজ্যের ওই স্কুলে হামলা করে এবং এসময় সে ১৫ থেকে ২০টি গুলিবর্ষণ করে। হামলার কারণ অবশ্য এখনও জানা যায়নি।

বিবিসি জানিয়েছে, স্কুলটি মিশিগানের অক্সফোর্ড শহরে অবস্থিত। যুক্তরাষ্ট্রের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় এই অঙ্গরাজ্যের সবচেয়ে বড় শহর ডেট্রয়েট থেকে ৪০ কিলোমিটার (৬৫ মাইল) উত্তরে অক্সফোর্ড শহরটি অবস্থিত। বন্দুক হামলার ঘটনার পরপরই ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছে যায়। এর পাঁচ মিনিটের মধ্যে অভিযুক্ত হামলাকারী আত্মসমর্পণ করে। কর্মকর্তারা বলছেন, হামলাকারী ওই শিক্ষার্থী একই স্কুলের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

এদিকে মিনেসোটা টেকনিক্যাল কলেজ পরিদর্শনে থাকা যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এ ঘটনায় গভীর শোক ও হতাহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা প্রকাশ করেন।

আজারবাইজানে বিমান বিধ্বস্ত হয়ে নিহত ১৪: এদিকে আজারবাইজানে প্রশিক্ষণের সময় একটি সামরিক হেলিকপ্টার (বিমান) বিধ্বস্ত হয়ে ১৪ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও দুজন। মঙ্গলবার এ দুর্ঘটনা ঘটে। আজারবাইজানের সীমান্তরক্ষী বাহিনী ও প্রসিকিউটর জেনারেলের অফিস থেকে যৌথ বিবৃতিতে বলা হয়েছে, আজারবাইজানের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর হেলিকপ্টারটি মঙ্গলবার সকালে বিধ্বস্ত হয়। দুর্ঘটনার কারণ সম্পর্কে এখন নিশ্চিত হওয়া যায়নি। ঘটনাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। দুর্ঘটনায় নিহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন আজারবাইজানের প্রেসিডেন্ট ইলহাম আলিয়েব ও তার স্ত্রী মেখরিবান আলিয়েভা।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন   ❑ পড়েছেন  ৯৯৮  জন  

সর্বশেষ..