সারা বাংলা

রাবিতে দুই ভিসির দুর্নীতি নিয়ে পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি

ছাত্রদল নেতা আটক

প্রতিনিধি, রাবি: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিফলক নির্মাণে অনিয়ম ও দুর্নীতি এবং বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে অবমাননার ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে সাবেক উপাচার্য মিজান উদ্দীনসহ তার প্রশাসনের শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে বর্তমান ভিসিপন্থি শিক্ষক-কর্মকর্তা-কর্মচারী ও ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা। গতকাল সোমবার বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সিনেট ভবনের সামনে এ কর্মসূচির আয়োজন করেন তারা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের এমফিলের ফেলো মতিউর রহমান মর্তুজার সঞ্চালনায় মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক প্রশাসনের ভিসি অধ্যাপক মিজানউদ্দিন ও তার নেতৃত্বাধীন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিফলক নির্মাণে ৮০ লাখ টাকা তছরূপ করেছেন। তদন্ত করে এর প্রমাণও মিলেছে।

তারা বলেন, প্রথমে প্রণয়ন করা নকশা বদল করে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি নিচে যুক্ত করেছেন। এর মধ্য দিয়ে স্পষ্টভাবে বঙ্গবন্ধুকে অবমাননা করা হয়েছে। স্মৃতিফলক নির্মাণ ও বঙ্গবন্ধুকে অবমাননায় জড়িতদের অবিলম্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকরি থেকে স্থায়ী বরখাস্তসহ শাস্তির দাবি জানান তারা।

প্রগতিশীল শিক্ষকদের ব্যানারে কর্মসূচির আয়োজনের বিষয়ে জানতে চাইলে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও মূল্যবোধে বিশ্বাসী প্রগতিশীল শিক্ষক সমাজের আহ্বায়ক এবং পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. এম মজিবুর রহমান বলেন, ‘আজ প্রগতিশীল শিক্ষক সমাজের কোনো মানববন্ধন আছে বলে আমার জানা নেই।’

অন্যদিকে ইউজিসির তদন্তে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) উপাচার্য প্রফেসর আবদুস সোবহানসহ বর্তমান প্রশাসনের কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তাদের অপসারণের দাবিতে বেলা সাড়ে ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রধান ফটক থেকে বিক্ষোভ মিছিল করে শাখা ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা। বিক্ষোভ চলাকালে পুলিশের ধাওয়ায় মিছিলটি ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়। এ সময় ছাত্রদলের এক নেতাকে আটক করে পুলিশ। আটককৃত ছাত্রদল নেতা হলেন, মতিহার থানা উত্তর ছাত্রদলের আহ্বায়ক রফিকুল ইসলাম পাখি।

মিছিল থেকে আটকের বিষয়ে জানতে চাইলে মতিহার থানার ওসি সিদ্দিকুর রহমান বলেন, ‘মিছিল থেকে আটক করা হয়নি। পুলিশের গাড়ি দেখে পালানোর সময় তার আচরণ সন্দেহজনক মনে হয়েছে তাই আটক করা হয়েছে। পরিবারকে খবর দিয়ে যাচাই-বাছাই করা শেষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

মিছিলে ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সংসদের রাজশাহী বিভাগীয়, রাজশাহী মহানগর ও বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।  বিক্ষোভ মিছিল থেকে দর্শন বিভাগের সাবেক শিক্ষার্থী মুস্তাফিজুর রহমানের হত্যাকারীদের অবিলম্বে গ্রেপ্তারের দাবিও জানান ছাত্রদল নেতারা।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..