প্রচ্ছদ শেষ পাতা

রেস লেভেল অ্যান্ড প্রিন্টিংয়ের কোটি টাকা রাজস্ব ফাঁকির চেষ্টা

সাইদ সবুজ, চট্টগ্রাম: ঢাকার আমদানিকারক রেস লেভেল অ্যান্ড প্রিন্টিং ইন্ডাস্ট্রিজ ‘সেল্ফ অ্যাডহেসিভ টেপ ইন রোল’ ঘোষণায় চট্টগ্রাম বন্দর দিয়ে ‘ফ্লেক্স ব্যানার রোল’ নিয়ে আসে। সম্প্রতি চট্টগ্রাম কাস্টম হাউসের হাতে চালানটি আটক হয়েছে। এতে ঘোষণা অনুযায়ী ১২০ মেট্রিক টন সেলফ্ অ্যাডহেসিভ টেপ ইন রোল আমদানির কথা থাকলেও ঘোষণার বহির্ভূত ১০১ মেট্রিক টন ফ্লেক্স ব্যানার রোল নিয়ে আসে আমদানিকারক। আর তাতে এক কোটি ১৯ লাখ ৭৬ হাজার ৩০৫ টাকা শুল্ক ফাঁকির চেষ্টা করা হয় বলে জানায় কাস্টমস কর্তৃপক্ষ।
কাস্টমস সূত্রে জানা গেছে, আমদানিকারক ‘সেলফ্ অ্যাডহেসিভ টেপ ইন রোল’ ঘোষণায় ‘ফ্লেক্স ব্যানার রোল’ আমদানি করে বিশাল অঙ্কের রাজস্ব ফাঁকি দেওয়ার চেষ্টা করে। তবে চট্টগ্রাম কাস্টমসের অডিট ইনভেস্টিগেশন অ্যান্ড রিসার্চ (এআইআর) শাখার কর্মকর্তাদের তৎপরতার কারণে এক কোটি ১৯ লাখ ৭৬ হাজার ৩০৫ টাকার রাজস্ব সুরক্ষিত হয়েছে। আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান চালানটি খালাসে গত ২ জুলাই বিল অব এন্ট্রি দাখিল করে। ঘোষণা অনুযায়ী আমদানিকারকের শুল্ককর আসে ৬৬ লাখ টাকা। কিন্তু শতভাগ কায়িক পরীক্ষায় দেখা যায়, প্রতিষ্ঠানটির ১০১ মেট্রিক টনই ছিল মিথ্যা ঘোষণার ফ্লেক্স ব্যানার রোল নিয়ে এসেছে। এতে মিথ্যা ঘোষণা দিয়ে শুল্ক ফাঁকির চেষ্টা করা প্রতিষ্ঠানটিকে শুল্ক আদায়ের পাশাপাশি জরিমানাও করা হয়েছে। আর তাতে প্রতিষ্ঠানটির মোট শুল্ককর আসে দুই কোটি ২৭ লাখ তিন হাজার ৮৩২ টাকা। চালানটি খালাসে দায়িত্বপ্রাপ্ত সিঅ্যান্ডএফ প্রতিষ্ঠান ছিল জিনু এন্টারপ্রাইজ প্রাইভেট লিমিটেড।
চট্টগ্রাম কাস্টমসের উপ-কমিশনার অনুপম চাকমা বলেন, ‘সেলফ্ অ্যাডহেসিভ টেপ ইন রোল’ ঘোষণায় ‘ফ্লেক্স ব্যানার রোল নিয়ে আসার দায়ে ঢাকার আমদানিকারক রেস লেভেল অ্যান্ড প্রিন্টিং ইন্ডাস্ট্রিজের কাছ থেকে জরিমানাসহ দুই কোটি ২৭ লাখ তিন হাজার ৮৩২ টাকা আদায় করা হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি মিথ্যা ঘোষণার মাধ্যমে কোটি টাকারও বেশি রাজস্ব ফাঁকি দেওয়ার চেষ্টা করছিল। মিথ্যা ঘোষণায় যারা পণ্য আমদানি করে, সেইসব অসাধু ব্যবসায়ীর ব্যাপারে কাস্টমসের এআইআর শাখা সব সময় সজাগ রয়েছে। কোনো চালানে সন্দেহ হলে সেটি আমরা শতভাগ কায়িক পরীক্ষা করি।
কাস্টম হাউসের কমিশনার মোহাম্মদ ফখরুল আলম বলেন, মিথ্যা ঘোষণায় যারা পণ্য আমদানি করেন, তাদের কোনো ছাড় নয়। সরকারের রাজস্ব সুরক্ষা করে রাজস্ব আয়ে গতি বাড়ানো কাস্টমসের প্রধান কাজ। তাই মিথ্যা ঘোষণায় পণ্য আমদানি রোধে আমরা আরও কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ করব।

ট্যাগ »

সর্বশেষ..