প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

ফের উৎপাদন শুরু করেছে এমারেল্ড অয়েল

 

নিজস্ব প্রতিবেদক: পুনরায় উৎপাদন শুরু করেছে তালিকাভুক্ত খাদ্য ও আনুষঙ্গিক খাতের কোম্পানি এমারেল্ড অয়েল লিমিটেড। যন্ত্রপাতি মেরামতের পর গত মঙ্গলবার থেকে কোম্পানিটি উৎপাদন শুরু করেছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা যায়, যন্ত্রপাতি মেরামতের পর উৎপাদন শুরু করেছে কি না জানতে চেয়ে এমারেল্ড অয়েলকে চিঠি পাঠায় ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। জবাবে পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী গত ২০ আগস্ট উৎপাদন শুরু হয়েছে বলে জানিয়েছে কোম্পানিটি।

এমারেল্ড অয়েলের উৎপাদন গত ২৭ জুন থেকে বন্ধ থাকলেও কোম্পানিটি ডিএসইর চিঠির জবাবে গত ১৭ আগস্ট এ সংক্রান্ত সংবাদ প্রকাশ করে ডিএসইর ওয়েবসাইটে। ওই সময় কোম্পানিটি জানায়, মেশিনারিজ ও সরঞ্জাম বার্ষিক সংস্কারের কারণে উৎপাদন বন্ধ রয়েছে। কোম্পানিটি ২০ আগস্ট থেকে আবার উৎপাদন শুরু করবে।

উল্লেখ্য, কোম্পানিটি ২০১৪ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়ে বর্তমানে ‘এ’ ক্যাটাগরিতে অবস্থান করছে। ৩০ জুন ২০১৬ পর্যন্ত সমাপ্ত হিসাববছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে ১০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে তিন টাকা ৩৩ পয়সা এবং শেয়ারপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ১৭ টাকা ২৩ পয়সা। ঘোষিত লভ্যাংশ বিনিয়োগকারীদের সম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য ৩১ ডিসেম্বর অনুষ্ঠেয় বার্ষিক সাধারণ সভায় (এজিএম) উপস্থাপন করা হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ ছিল ১৮ ডিসেম্বর। ২০১৫ সালে কোম্পানিটি ১০ শতাংশ নগদ ও ১০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ দিয়েছিল। ওই সময় ইপিএস ছিল তিন টাকা ১০ পয়সা এবং এনএভি ছিল ১৬ টাকা ২৯ পয়সা, যা আগের বছর একই সময় ছিল যথাক্রমে দুই টাকা ৩৯ পয়সা ও ১৪ টাকা ২৬ পয়সা।