লেনদেনের শীর্ষে ওরিয়ন ফার্মা

নিজস্ব প্রতিবেদক: ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) গতকাল লেনদেনের শীর্ষে উঠে আসে ওষুধ ও রসায়ন খাতের কোম্পানি ওরিয়ন ফার্মা লিমিটেড। দিনজুড়ে কোম্পানিটির এক কোটি ৭৭ লাখ ২০ হাজার ৩৭০টি শেয়ার ১৪২ কোটি পাঁচ লাখ ৮০ হাজার টাকায় লেনদেন হয়। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

এদিকে গতকাল ডিএসইতে কোম্পানিটির শেয়ারদর আট দশমিক ৭৬ শতাংশ বা ছয় টাকা ৮০ পয়সা বেড়ে প্রতিটি সর্বশেষ ৮৪ টাকা ৪০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দরও ছিল ৮৪ টাকা ৪০ পয়সা। দিনভর শেয়ারদর সর্বনিম্ন ৭৬ টাকা ২০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ ৮৫ টাকা ৩০ পয়সায় ওঠানামা করে। এক বছরের মধ্যে শেয়ারদর ৪২ টাকা থেকে ৮৫ টাকা ৩৬০ পয়সায় ওঠানামা করে।

এদিকে ২০২০ সালের ৩০ জুন সমাপ্ত হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে ১০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছে ওরিয়ন ফার্মা। আলোচিত সময়ে ইপিএস হয়েছে দুই টাকা ৮৪ পয়সা এবং শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ৭৬ টাকা ৭৭ পয়সা। এর আগে ২০১৯ সালের ৩০ জুন সমাপ্ত হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে কোম্পানিটি ১৫ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছে।

২০১৩ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয় ‘এ’ ক্যাটেগরির কোম্পানি। অনুমোদিত মূলধন ৫০০ কোটি টাকা। আর পরিশোধিত মূলধন ২৩৪ কোটি টাকা। রিজার্ভের পরিমাণ ৭৫৫ কোটি ২২ লাখ টাকা। কোম্পানিটির ২৩ কোটি ৪০ লাখ শেয়ার রয়েছে। ডিএসইর সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী কোম্পানির শেয়ারের মধ্যে উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের কাছে রয়েছে ৩১ দশমিক ৯৮ শতাংশ শেয়ার, প্রাতিষ্ঠানিক ৩৬ দশমিক ৫১ শতাংশ, বিদেশি এক দশমিক ১৭ শতাংশ ও সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ৩০ দশমিক ৩৪ শতাংশ শেয়ার রয়েছে।

সর্বশেষ..