আজকের পত্রিকা বাণিজ্য সংবাদ সারা বাংলা

শতভাগ মজুরির দাবিতে ফোর এইচ গ্রুপের শ্রমিকদের বিক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম: চট্টগ্রামের বায়েজিদ বোস্তামী থানার নতুনপাড়া এলাকার ফোর এইচ লিঙারী লিমিটেড নামের একটি পোশাক কারখানার শ্রমিকরা শতভাগ মজুরির দাবিতে বিক্ষোভ করছে। প্রায় চার ঘণ্টার বেশি সময় ধরে তারা কাজে যোগ না দিয়ে রাস্তা অবরোধ করে রেখেছে। এত সড়ক জুড়ে যানজট সৃষ্টি হয়।

স্থানীয়রা ও কর্মরত শ্রমিকরা জানান, সকাল ৮টা থেকে ফোর এইচ গ্রুপের ফোর এইচ লিঙারী লিমিটেডের কারখানার শ্রমিকরা কাজে যোগ দেয়নি। প্রথমে শ্রমিকদের একটি অংশ কারখানার গেটের ভেতর অবস্থান নিলেও সকাল ৯টা থেকে তারা ক্যান্টনমেন্ট রেলওয়ে স্টেশনের প্রবেশ পথ, বিআরটিসি চত্ত্বর ও চট্টগ্রাম-রাঙ্গামাটি মহাসড়কে অবস্থান নেয়।

এ সময়ে কয়েক দফা কারখানা কর্তৃপক্ষসহ শ্রমিক নেতাদের মাঝে বৈঠক হয়। পরে পুলিশ প্রশাসন, বিজিএমইএ ও বিকিএমইএসহ সংশ্লিষ্ট পক্ষগুলো বৈঠক করে। কিন্তু আন্দোলনকারী শ্রমিকরা মিটিংয়ের সিদ্ধান্ত সর্ম্পকে তেমন কিছু জানেন না।

এ বিষয়ে বেশ কয়েকজন শ্রমিক এ প্রতিবেদককে বলেন, গত এপ্রিল মাসে আমরা নয়দিন কাজ করেছি। সরকার ও বিজিএমইএ বলেছে কোনো বেতন কাটা যাবে না। অথচ তারা বেতন দিবে বলছে ৬৫ শতাংশ। এরমধ্যে ঈদের আগে ৬০ শতাংশ এবং বাকি ৫ শতাংশ ঈদের পর। এ কারখানায় আমরা ১৭০০ জন শ্রমিকসহ মোট ২৬০০ জন শ্রমিক কাজ করছি। অথচ ফোর এইচ গ্রুপের অন্যান্য কারখানায় শতাভাগ বেতন দেওয়া হয়েছে। বৈঠকে কি সিদ্ধান্ত হয়েছে তা এখন পর্যন্ত জানি না।

শ্রমিক আন্দোলনের বিষয়টি নিশ্চিত করে শিল্প পুলিশের পরিদর্শক জাহিদ গণমাধ্যমকে বলেন, আমরা ঘটনাস্থলেই আছি, শ্রমিকরা এপ্রিল মাসের শতভাগ মজুরির দাবি করে রাস্তায় অবস্থান নিয়েছেন। আমরা তাদের বুঝিয়ে রাস্তা থেকে সরিয়ে দিয়েছি।

এ বিষয়ে জানার জন্য ফোর এইচ গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক গওহর জামিল সিরাজের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে ব্যবহৃত নাম্বারটি বন্ধ পাওয়া যায়। ফলে তার মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

নাম প্রকাশে অনচ্ছিুক সিনিয়র এক কর্মকর্তা শেয়ার বিজকে বলেন, এপ্রিল মাসের শতভাগ বেতনের দাবিতে আমাদের একটি ফ্যাক্টরিতে আন্দোলন হয়েছিল। এটা সমাধানের জন্য বৈঠক চলছে। এখন পর্যন্ত আমার কাছে আপডেট তথ্য আসেনি। আসলে জানাব।

শিল্প পুলিশ (চট্টগ্রাম-৩) এর পুলিশ সুপার উত্তম কুমার পালের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন। ফলে তার মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..