সুস্বাস্থ্য

শিশুকে টিকা দিন

টিকা এক ধরনের প্রতিষেধক ও প্রতিরোধক। একটি শিশু জšে§র পর নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে তাকে টিকা

দিতে হয়।

টিকা যেসব রোগের প্রতিষেধক ও প্রতিরোধক

যক্ষ্মা, নিউমোনিয়া, হেপাটাইটিস-বি, পোলিও, ডিপথেরিয়া, হুপিং কাশি, ধনুষ্টংকার, হাম, টাইফয়েড, রোটা ভাইরাস, হোমোফাইলাস ইনফ্লুয়েঞ্জা-বি, জলবসন্ত, মাম্পস, মেনিনজাইটিস প্রভৃতি।

কখন দেওয়া যাবে টিকা

প্রায় সব অবস্থায় টিকা দেওয়া যায়। কোনো কোনো টিকা একবার দেওয়া হয়। কোনোটির একাধিক ডোজ রয়েছে। একই টিকার দুই ডোজের মধ্যে চার সপ্তাহ বিরতি থাকা উচিত।

কখন দেওয়া যাবে না

অসুস্থ থাকলে। পেন্টাভ্যালেন্ট টিকা নেওয়ার পর খিঁচুনি কিংবা অজ্ঞান হলে এ টিকার পরের ডোজ দেওয়া যাবে না

পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া

টিকা দেওয়ায় তেমন কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই। কিছু কিছু ক্ষেত্রে জটিলতা সৃষ্টি হলেও তা মারাত্মক নয়

টিকা দেওয়ার স্থান লাল হয়ে যেতে পারে

ফুলে যেতে পারে

দানা, ক্ষত কিংবা ঘা হতে পারে

দাগ থেকে যেতে পারে সারা জীবনের জন্য

জ্বর হতে পারে

ব্যথা হতে পারে

কোনো কোনো শিশুর খিঁচুনি আসতে পারে

উল্লিখিত পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার মধ্যে জ্বরের সঙ্গে খিঁচুনি থাকলে ডাক্তারের পরামর্শ নিন। অন্যান্য ক্ষেত্রে ঘাবড়ানোর কিছু নেই। কিছুদিনের মধ্যে ঠিক হয়ে যায়। তবে পরের টিকা নেওয়ার সময় পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার বিষয়ে অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ নেবেন।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..