Print Date & Time : 6 December 2020 Sunday 5:06 am

সব খাতেই ছিল মুনাফা তোলার প্রবণতা

প্রকাশ: March 13, 2020 সময়- 12:54 am

রুবাইয়াত রিক্তা: পুঁজিবাজার দুদিন ইতিবাচক থাকার পরে ফের পতন হয়েছে। বিনিয়োগকারীদের মুনাফা তোলার প্রবণতা থেকেই এ দরপতন। গতকালও আগের দুই কার্যদিবসে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ২২৩ পয়েন্ট বাড়ার পড়ে গতকাল একদিনে পতন হয় ১০১ পয়েন্ট। অর্থাৎ দুদিন বৃদ্ধির পরেই বিনিয়োগকারীদের মধ্যে মুনাফা তুলে নেওয়ার প্রবণতা দেখা যায়। বর্তমানে বাজারে সূচকের বড় উত্থান ও পতনের পেছনে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের ভূমিকাই প্রধান। এখন প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরা যদি দীর্ঘমেয়াদি বিনিয়োগ না করে ডে ট্রেডিংয়ে বেশি আগ্রহী হয় তাহলে বাজার স্থিতিশীল করা কোনোভাবেই সম্ভব হবে না।

গতকাল ৮৩ শতাংশ কোম্পানির দরপতন হয়। দর বেড়েছে মাত্র ১০ শতাংশ বা ৩৬টি কোম্পানির। সব খাতেই ছিল বিক্রির চাপ। কোনো খাত এককভাবে ভালো অবস্থানে ছিল না। এক চর্তুথাংশের বেশি লেনদেন হয়ে শীর্ষে উঠে আসে ওষুধ ও রসায়ন খাত। এ খাতে ৯টি কোম্পানির দর বেড়েছে। লেনদেনের শীর্ষে উঠে আসা ওরিয়ন ফার্মার ১৮ কোটি ৪৬ লাখ টাকা লেনদেন হয়। দর বেড়েছে তিন টাকা ৮০ পয়সা। কোম্পানিটি দর বৃদ্ধির শীর্ষে উঠে আসে। চার দশমিক ৫৬ শতাংশ দর বেড়ে কহিনুর কেমিকেল ও চার দশমিক ২৫ শতাংশ বেড়ে সিভিও পেট্রোকেমিক্যাল দর বৃদ্ধির শীর্ষ দশের মধ্যে অবস্থান করে। বীকন ফার্মার ১১ কোটি ৫০ লাখ টাকা লেনদেন হলেও দরপতন হয় এক টাকা ৯০ পয়সা। ১১ কোটি টাকা লেনদেন হলেও ওরিয়ন ইনফিউশনের দরপতন হয় ৬০ পয়সা। স্কয়ার ফার্মার ৯ কোটি ৯৮ লাখ টাকা লেনদেন হয়। দর কমেছে দেড় টাকা। সিলভা ফার্মার আট কোটি ৩৬ লাখ টাকা লেনদেন হয়, দরপতন হয় ৬০ পয়সা। ফার কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিজের সাত কোটি ৪৪ লাখ টাকা লেনদেন হয়, দরপতন হয় ৫০ পয়সা। এরপরে ১৪ শতাংশ লেনদেন হয় প্রকৌশল খাতে। এ খাতে পাঁচ কোম্পানির দর বেড়েছে। বিডি অটোকারের দর দুই দশমিক শূন্য ছয় শতাংশ বেড়ে অস্টম অবস্থানে উঠে আসে। বস্ত্র খাতে লেনদেন হয় ১০ শতাংশ। এ খাতে ১০ কোম্পানির দর বেড়েছে। মতিন স্পিনিং এক দশমিক ৭৮ শতাংশ বেড়ে দশম অবস্থানে উঠে আসে। জ্বালানি খাতে মাত্র দুটি কোম্পানির দর বেড়েছে। সোয়া চার শতাংশ বেড়ে সিভিও পেট্রোকেমিক্যাল দর বৃদ্ধিতে ষষ্ঠ অবস্থানে ছিল। ব্যাংক খাতে মাত্র দুটি ও আর্থিক খাতে চারটি কোম্পানির দর বেড়েছে। এর মধ্যে বি ক্যাটেগরির ইন্টারন্যাশনাল লিজিংয়ের দর আট দশমিক ১১ শতাংশ বেড়ে দর বৃদ্ধিতে তৃতীয় অবস্থানে উঠে আসে। এছাড়া খাদ্য খাতের এএমসিএল (প্রাণ), চামড়াশিল্প খাতের লিগ্যাসি ফুটওয়্যার ও বিমা খাতের বাংলাদেশ জেনারেল ইন্স্যুরেন্স দর বৃদ্ধির শীর্ষ দশের তালিকায় অবস্থান করে।