বিশ্ব সংবাদ

সরকার গঠন করতে ব্যর্থ নেতানিয়াহু

শেয়ার বিজ ডেস্ক : ইসরাইলের দীর্ঘ সময়ের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু এবার সরকার গঠন করতে পারছেন না বলে জানিয়েছেন। দুই দফা নির্বাচনেও সংখ্যাগরিষ্ঠতা না পাওয়ায় দেশটির প্রেসিডেন্ট তাকে অন্য দলগুলোর সঙ্গে সমঝোতা করে সরকার গঠনের সময় বেঁধে দেন। তবে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে সমঝোতায় ব্যর্থ হওয়ায় সরকার গঠন করা থেকে সরে দাঁড়ালেন তিনি। নেতানিয়াহু পিছু হটায় সরকার গঠনের সুযোগ চলে যাচ্ছে প্রতিদ্বন্দ্বী দলের হাতে। খবর: বিবিসি।

প্রায় এক দশক নেতানিয়াহু ক্ষমতায়। তবে গত সেপ্টেম্বরে অনুষ্ঠিত সাধারণ নির্বাচনে তার দল সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জনে ব্যর্থ হয়েছে। তার প্রতিপক্ষ বেনি গান্টজের ব্লু অ্যান্ড হোয়াইট দলকে এখন সরকার গঠনে আমন্ত্রণ জানাচ্ছেন ইসরাইলের প্রেসিডেন্ট রিউভেন রিভলিন।

বেনি গান্টজের দলকে নিয়েও ঐক্যের সরকার গঠনে নেতানিয়াহু চেষ্টা করেছিলেন। তবে গান্টজের দল তাতে রাজি হয়নি। ঘোষণায় নেতানিয়াহু বলেন, যৌথ সরকার গঠনে তিনি বারবার চেষ্টা করলেও পারেননি।

গত ৯ এপ্রিল ইসরাইলে সাধারণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ওই নির্বাচনে নেতানিয়াহুর দলসহ কোনো দল সরকার গঠনে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পায়নি। ফলে দ্বিতীয় দফায় ১৭ সেপ্টেম্বর সাধারণ নির্বাচনের আয়োজন করা হয়।

ইসরাইলের ইতিহাসে এই প্রথম এক বছরে দুবার সাধারণ নির্বাচন আয়োজনের ঘটনা ঘটে। পার্লামেন্টের ১২০টি আসনে ৩১টি রাজনৈতিক দল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে। দুবারই নেতানিয়াহুর ডানপন্থি লিকুদ পার্টির সঙ্গে বেনি গান্টজের মধ্যপন্থি ব্লু অ্যান্ড হোয়াইটের হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হয়। এপ্রিলের ভোটে নেতানিয়াহুর লিকুদ পার্টি ৩৬টি আসন পেয়েছিল। তার প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী বেনি গান্টজের ব্লু অ্যান্ড হোয়াইট পেয়েছিল ৩৫টি আসন।

সেপ্টেম্বরের নির্বাচনে লিকুদ পার্টি ৩২ এবং ব্লু অ্যান্ড হোয়াইট পার্টি ৩৩টি আসন পায়।

এবারের নির্বাচনের পর প্রেসিডেন্ট রিভলিন যৌথ সরকার গঠনের প্রথম সুযোগটি নেতানিয়াহুকে দিয়েছিলেন। ইসরাইলের প্রেসিডেন্ট প্রধান দুটি দল লিকুদ এবং ব্লু অ্যান্ড হোয়াইটকে ঐক্যের সরকার গঠনের আহ্বান জানিয়েছিলেন।

সর্বশেষ..