প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বোচ্চ বৃদ্ধির পর বিশ্ববাজারে জ্বালানি তেলের দাম কমেছে

শেয়ার বিজ ডেস্ক: বিশ্ববাজারে জ্বালানি তেলের দাম গত সোমবার এক বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ পর্যায়ে পৌঁছার পর গতকাল কিছুটা কমেছে। লেনদেনের শুরুতে প্রতি ব্যারেল অশোধিত তেলের দাম (যা ফেব্রুয়ারিতে সরবরাহ করা হবে) শূন্য দশমিক ৭০ শতাংশ কমে দাঁড়ায় ৫৪ ডলার ৫৫ সেন্টে। খবর মার্কেট ওয়াচ।

টানা কয়েকদিন দাম বাড়ার পর গতকাল বিশ্ববাজারে এ পণ্যটির দাম কিছুটা কমলো। গত সপ্তাহে তেল রফতানিকারক দেশগুলোর সংগঠন ওপেকের উত্তোলন কমানোর সিদ্ধান্তের পর বিশ্ববাজারে ১৫ শতাংশ পর্যন্ত বৃদ্ধি পায় জ্বালানি তেলের দাম। গত সোমবার দিন শেষে দাম এক বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ পর্যায়ে ওঠে।

২০১৭ সালের জানুয়ারি থেকে এক শতাংশ পর্যন্ত তেল উত্তোলন কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে ওপেক। গত আট বছরের মধ্যে এটা হচ্ছে ওপেকের তেল উত্তোলন কমানোর প্রথম সিদ্ধান্ত। চলতি বছরের নভেম্বরে প্রতিদিন তিন কোটি ৪১ লাখ ব্যারেল তেল উত্তোলন করে ওপেকভুক্ত দেশগুলো। অক্টোবরে যা ছিল তিন কোটি ৩৮ লাখ ব্যারেল। এছাড়া রাশিয়া জানিয়েছে, নভেম্বরে দেশটি এক কোটি ১২ লাখ ব্যারেল তেল উত্তোলন করেছে, যা গত প্রায় ৩০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ উত্তোলন। অর্থাৎ রাশিয়া ও ওপেক মোট বিশ্ব চাহিদার প্রায় অর্ধেক তেল উত্তোলন করে। বিশ্বে প্রতিদিন সাড়ে ৯ কোটি ব্যারেল জ্বালানি তেলের চাহিদা রয়েছে। তাই ওপেকের উত্তোলন কমানোর সিদ্ধান্তে বাড়তে শুরু করে দাম। আন্তর্জাতিক বাজারে ২০১৪ সালের জুন থেকেই কমতে শুরু করে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দাম। অধিক উত্তোলনের কারণে বিশ্ববাজারে জোগান বেড়ে যায় তেলের। দুই বছরের মধ্যে তেলের দাম ৬০ শতাংশ পর্যন্ত কমে যায়।