খবর

স্বাস্থ্যবিধি না মানলে শপিং সেন্টার বন্ধ: আতিক

নিজস্ব প্রতিবেদক: যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি না মানলে শপিং সেন্টার ও দোকানপাট বন্ধ করে দেয়া হবে বলে আবার হুশিয়ারি দিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম। নিজেদের স্বার্থে এবং দেশ ও জনগণের স্বার্থে সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মানার আহ্বান জানান তিনি।

গতকাল বিকালে বিভিন্ন বিপণিবিতান ও দোকানে স্বাস্থ্যবিধি পালন করা হচ্ছে কি নাÑদেখতে সরেজমিনে অভিযানে যান মেয়র। রাজধানীর গুলশান ১ নম্বরের ডিসিসি মার্কেট পরিদর্শন করেন তিনি।

পরিদর্শনকালে মার্কেটের তিনটি দোকানে থাকা ব্যবসায়ী ও ক্রেতাদের মাস্ক পরতে না দেখে দোকানগুলো সিলগালা করে দেয়া হয়। পাশাপাশি একটি দোকানে ৫০০ টাকা জরিমানা ও অনাদায়ে দোকান মালিককে এক মাসের জেল দেয়া হয়।

এ সময় একটি দোকানে এক কিশোরকে মাস্ক পরা অবস্থায় দেখে সন্তোষ প্রকাশ করেন মেয়র আতিক। কিশোরকে দেখিয়ে সবার উদ্দেশে ডিএনসিসি মেয়র বলেন, বয়সে ছোট হয়েও সে মাস্ক পরেছে, আমরা অনেক বড়রাই মাস্ক পরি না। ওর মতো আমাদের সবাইকে মাস্ক পরতে হবে। পরে কিশোরকে এক বক্স সার্জিক্যাল মাস্ক ও একটি হ্যান্ড স্যানিটাইজার উপহার হিসেবে দেন মেয়র।

পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে আতিক বলেন, ব্যবসায়ীরা দোকান খোলার আগে একটা আন্ডারটেকিং (মুচলেকা) দিয়েছিল যে, স্বাস্থ্যবিধি মানার বিষয়টি তারা নিশ্চিত করবে। কিন্তু বাস্তবে সেটি হচ্ছে না। আমি আজ পরিদর্শনে আসব দেখে অনেকে মাস্ক পরছেন। কিন্তু এটা শুধু আমাকে দেখে করলে হবে  না। অনেক রেস্টুরেন্ট ও পাঁচ তারকা হোটেলে ইফতার পার্টি হচ্ছে বলে আমরা খবর পাচ্ছি। অনেকে আমার কাছে অনুরোধ করছেন আমরা যেন এগুলো হতে দেই। কিন্তু এগুলো হতে দেব না। সরকার যেখানে নিষেধ করেছে সেখানে এগুলো হয় কী করে?

মেয়র আতিক বলেন, আমি আবারও হুশিয়ার করে যাচ্ছি। কোথাও এমন অনিয়ম হলে, স্বাস্থ্যবিধি পালন না হলে সে মার্কেট কিন্তু আমরা বন্ধ করে দেব। আমরা চাই না যে, ঈদের আগে কারও দোকান বন্ধ হোক। তবে নিয়ম না মানলে আমাদের করতে হবে।

অভিযানকালে ডিএনসিসির নানা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ছাড়াও অন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন
ট্যাগ ➧

সর্বশেষ..