স্পোর্টস

১৫ বছর পর…

ক্রীড়া প্রতিবেদক: ২০০৯ সালে আচমকা দেশের মাঠে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে নির্বাসিত হয়েছিল পাকিস্তান। লাহোরে শ্রীলঙ্কা দলের ওপর সন্ত্রাসী হামলার পর এলোমেলো হয়ে যায় সবকিছু। তাদের ‘হোম’ হয়ে উঠে মধ্যপ্রাচ্যের কোন দেশ। সন্ত্রাস কবলিত থাকায় দেশটিতে খেলতে যেতে চাইছিল না টেস্ট খেলুড়ে দেশগুলো।

অবশেষে প্রায় ১০ বছর পর নিজ দেশে আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলে পাকিস্তান। শ্রীলঙ্কা দলই সবার আগে যায় পাকিস্তানে। এ বছরের শুরুতেই দেশটিতে সফরে যায় বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। যাওয়ার কথা ছিল ফের। কিন্তু করোনাভাইরাসের কারণে যাওয়া হয়নি। আবার ২০০৫ সালে সব শেষবারের মতো পাকিস্তানে ক্রিকেট খেলতে গিয়েছিল ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল।

এরপর সন্ত্রাস কবলিত থাকায় নির্ধারিত সফর থেকে নিজেদের সরিয়ে নেয় তারা। পাকিস্তানের হোম সিরিজ তারা খেলেছে সংযুক্ত আরব আমিরাতে।ফের পাকিস্তান সফরে যাচ্ছে ইংলিশরা। আইসিসির এফটিপি সূচিতে ২০২২ সালে পাকিস্তান সফরে যাওয়ার কথা তাদের। কিন্তু আসছে বছরের জানুয়ারিতেই পাকিস্তানে যেতে পারে ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল।

সব ঠিক থাকলে ২০২১ সালে সীমিত ওভারের সংক্ষিপ্ত সূচিতে খেলতে দেশটিতে যাবে ইংলিশরা। এরইমধ্যে ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডকে (ইসিবি) আমন্ত্রণ জানিয়েছে পাকিস্তান। ১৫ বছরের অপেক্ষা শেষে পাকিস্তানে দেখা যাবে ইংলিশ ক্রিকেটারদের।

সফরের ব্যাপারে ইতিবাচক আছে ইসিবি। পরিস্থিতি বুঝে সিদ্ধান্ত নেবে তারা। ইংল্যান্ডের জন্য সঠিক জৈব নিরাপত্তা বলয় তৈরি করবে পিসিবি। পুরো ব্যবস্থা পর্যবেক্ষণ করতে ইসিবি আগেই পাঠাবে চিকিৎসকদের একটি দল। সঙ্গে নিরাপত্তার ব্যাপারটিও গুরুত্ব দিচ্ছে ইসিবি।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..