সুস্বাস্থ্য

শীতের সবজি বিটে আছে নানা গুণ

 

সবজি হিসেবে ‘বিট’ বেশ সুস্বাদু। পাশাপাশি এর বেশ কিছু গুণও রয়েছে। আগে বিভিন্ন রোগ থেকে বাঁচতে বিটের কদর

ছিল তুঙ্গে। এতে আছে ভিটামিন, জিংক, আয়োডিন, ম্যাগনেশিয়াম, সোডিয়াম, ক্লোরিন, ক্যালসিয়াম প্রভৃতি। উপাদানগুলো শরীর সুস্থ রাখতে পরিপূরক হিসেবে কাজ করে। বিটের

কিছু গুণ:

 

কমায় রক্তচাপ

উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা দূর করতে বিট কার্যকর ভূমিকা রাখে। এর উচ্চমাত্রার নাইট্রেট রক্তচাপকে নিয়ন্ত্রণে আনতে সহায়তা করে। সেক্ষেত্রে প্রতিদিন দুই গ্লাস করে বিটের জুস খাওয়া রুটিন করে নিতে হবে। একই সঙ্গে ব্যাকটেরিয়ার সঙ্গে নাইট্রেট মিলে মস্তিষ্কের রক্তসঞ্চালন স্বাভাবিক করতে সহায়তা করে।

 

রক্তস্বল্পতা কমায়

লোহিত রক্তকণিকার গুরুত্বপূর্ণ একটি উপাদান আয়রন। প্রচুর পরিমাণ আয়রন রয়েছে বিটে। তাই রক্তস্বল্পতা কাটিয়ে উঠতে সবজিটি হতে পারে আপনার অন্যতম অবলম্বন।

 

বাড়ায় রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা

উচ্চমাত্রার অ্যান্টি-অক্সিডেন্টসমৃদ্ধ সবজি বিট। এটি খাওয়ার মাধ্যমে শরীরে ক্ষতিকারক টক্সিনের পরিমাণ কমিয়ে আনা সম্ভব। টক্সিনের পরিমাণ কমে এলে বাড়ে রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা।

পেশিশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে

পেশিশক্তি বাড়াতেও কাজে আসে সবজিটি। এজন্য নিয়মিত বিটের জুস পান করতে পারেন।

হজমশক্তি বাড়ায়

সবজিটি হজমের সমস্যা দূর করে। এর মাধ্যমে খাবার হজমে সমস্যার কারণে সৃষ্ট রোগগুলো দূর হয় সহজে।

দূর করে ত্বকে বার্ধক্যের ছাপ

সবজিটিতে রয়েছে অ্যান্টি-এজিং ফর্মুলা, যা বার্ধক্যের ছাপ দূর করতে সহায়তা করে। নিয়ম করে বিটের জুস খান, ত্বক রাখুন উজ্জ্বল, মসৃণ ও ঝকঝকে।

 

 

 

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..